নিউইয়র্ক     বৃহস্পতিবার, ২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ  | ৯ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

সমালোচনা করার আগে সাইবার সিকিউরিটি অ্যাক্ট পড়ার পরামর্শ

পরিচয় ডেস্ক

প্রকাশ: ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | ০৭:২২ পূর্বাহ্ণ | আপডেট: ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | ০৭:২২ পূর্বাহ্ণ

ফলো করুন-
সমালোচনা করার আগে সাইবার সিকিউরিটি অ্যাক্ট পড়ার পরামর্শ

বাংলাদেশের জাতীয় সংসদে পাস হওয়া ‘সাইবার সিকিউরিটি অ্যাক্ট ২০২৩’ একটু পড়ে দেখার পরামর্শ দিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত এক সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন,”আগে আইনটি পড়ুন।”

‘‘মানুষ আইনের সমালোচনা করলেও কোনো সমস্যায় পড়লে তারা এই আইনই ব্যবহার করেন” বলে মনে করেন তিনি।

ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্টকে ঘিরে যত উদ্বেগ ছিল, সাইবার সিকিউরিটিঅ্যাক্টে তা ঠিক করা হয়েছে দাবি করেন সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার কবির। দুটি আইন পড়ে তুলনা করে তারপর মন্তব্য করার আহ্বান জানান তিনি।পশ্চিমা বিশ্বের অনেক আইনকে ‘কুখ্যাত’ আইন বলে সেসব আইনের সমালোচনাও করেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী।

ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্ট অনুযায়ী ১৪টি ধারার অধীনে অপরাধ জামিন-অযোগ্য ছিল । জাতীয় সংসদে বুধবার (১৩ সেপ্টেম্বর) চারটি ধারায় অপরাধকে জামিন-অযোগ্য রেখে সাইবার সিকিউরিটি অ্যাক্ট পাস হয়।

কম্পিউটারের প্রধান তথ্য পরিকাঠামোতে অনুপ্রবেশ, কম্পিউটার সিস্টেমের ক্ষতি, সাইবার সন্ত্রাসী কার্যকলাপ এবং হ্যাকিং সম্পর্কিত অপরাধকে এই চারটি ধারায় রাখা হয়েছে। তবে ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্ট এর অধীনে চলমান মামলাগুলো পুরোনো আইন অনুসারেই চলবে। সে বিষয়ে নতুন আইনে একটি বিধান যুক্ত করা হয়েছে।

নতুন পাস হওয়া আইনেও মত প্রকাশের স্বাধীনতায় বাধা, জামিন অযোগ্য অপরাধ ও সমালোচকদের আটক করার মাধ্যমে আইনের অপব্যবহারের সুযোগ থেকে যাচ্ছে বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। – দ্য ডেইলি স্টার

শেয়ার করুন